মোবাইল (অ্যাপস) লুডু এখন জোয়ার আসর

মোবাইল (অ্যাপস) লুডু এখন জোয়ার আসর

আলোকিগ রাজশাহী: মানুষ মাত্রই আড্ডা প্রিয়। মাঠে-ঘাটে, হাটে-বাজারে, চা স্টল বিভিন্ন যায়গায় এখন লুডু খেলা জনপ্রিয় হয়ে আসছে। তবে লুডু খেলা আগে থেকেই জনপ্রিয়।

মুঠোফোন বা স্মার্টফোনের লুডু মোবাইল গেম অ্যাপস ব্যবহার করে লোকজন অনেক ধরনের খেলা খেলে। মোবাইলে গেম খেলে না কি সামান্য আয় করা যায় তবে তা যত সামান্য বলে না যায় এক সুত্রে।

লুডু এখন শুধু সময় কাটানোর মাধ্যম নয় এটা এখন একটি জোয়ার মাধ্যম। মোবাইল লুডু অ্যাপস দিয়ে যেখানে-সেখানে বসে খেলা যাই তাই কোন সমস্যা হয় না জোয়ারীদের।

লুডু মোবাইল গেমস এখন জুয়ার আড্ডার জনপ্রিয় মাধ্যম। যেখানে সেখানে বসে খেলা যায়। তবে লুডু একা খেলা যায় এবং চারজনেও খেলা যায়।

ডেভেলপাররা মানুষের অবসর সময় কাটানোর জন্য ভালো মোবাইল অ্যাপস লুডু গেমস তেরী করেছেন। তবে কিছু মানুষ তা জুয়ার একমাত্র মাধ্যমে পরিণত করছে।

লুডু খেলা বা জুয়ার আসরে খোয়াড়রা চুক্তিভিত্তিক খেলে। খেলার আগে সব নির্ধারণ করা হয়।

যেমন- চার জন যদি খেলায় অংশগ্রহণ করে যে প্রথমে বিজয়ী হবে তা নির্দিষ্ট পরিমাণ ১০০/৫০০ টাকা (তার বেশীও হতে পারে) পাবেন দ্বিতীয় জন বিজয়ীও তবে যদি চুক্তিতে বলা হয়। এই টাকাগুলো দিবেন তৃতীয় ও চতুর্থ স্থানের খেলোয়াড়রা।

তবে এই খেলায় বড় আকর্ষণ হলো এক গুটি দিয়ে আর এক গুটি কাটা। যে গুটি কাটতে পারবে তাকে নির্দিষ্ট করা টাকার পরিমাণ যে কাটলো তাকে দিতে হবে। এই গুটি কাটার টাকাও নির্ধারণ করে দেওয়া হয়।

জোয়া একটি আইন বিরোধী কাজ। এটা সমাজ ও সমাজের মানুষকে ধ্বংস করে। ব্যক্তি আর্থিক সমস্যায় পড়ে ও পরিবারের সুখ-শান্তি নষ্ট করে। এটি প্রতিরোধ করতে হবে। এটি প্রতিরোধ করতে আইনের আওতায় এনে প্রতিরোধ করতে হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here